ঢাকা, সোমবার, ১৯ আগস্ট ২০১৯, ৩ ভাদ্র ১৪২৬

প্রচ্ছদ » লাইফস্টাইল » বিস্তারিত

ঈদে সতর্ক থাকুন মেকআপের ব্যাপারে

২০১৯ আগস্ট ১০ ১৬:৩৩:৫৬
ঈদে সতর্ক থাকুন মেকআপের ব্যাপারে

লাইফস্টাইল ডেস্ক : ঈদ মানেই কিছুটা মেকআপের ছোঁয়া তো ত্বকে থাকবেই। তবে শুধু সৌন্দর্য ধরে রাখাই কেবল নয়, ত্বক ভালো রাখাটাও সমান গুরুত্বপূর্ণ। রূপচর্চার ফাঁকে সেই বিষয়টিতে ফাঁক থেকে গেলে কিন্তু ত্বকেরই ক্ষতি। সৌন্দর্য বজায় রাখতে ফেশিয়াল মাস্ক, নিয়মিত ক্লিনজিং থেকে শুরু করে নানা রকমের পদ্ধতি আমরা মেনে চলি। তাতে সমস্যা নেই, সমস্যা শুরু হয় ত্বকের প্রতি উদাসীন থাকলে।

আসলে রূপচর্চাতেও কিছু বাড়তি রাসায়নিক উপাদান ত্বকে জমতে থাকে। তা থেকে অপরিচ্ছন্নতা যেমন বাড়ে তেমনই ত্বকের ক্ষতি হওয়া শুরু হয়।

তাই মেকআপ কিটই হোক বা কোনো ফেশিয়াল ক্রিম, এগুলো কত দিন ব্যবহার করবেন, কীভাবে পরিষ্কার রাখবেন সে দিকেও নজর দিন। কোন কোন বিষয়গুলো মাথায় রাখবেন জানেন?

বাজারে বিভিন্ন ধরনের প্রডাক্ট কিনতে পাওয়া যায়। এর মধ্যে বেশ কিছু ক্ষতিকারক কেমিক্যালও থাকে। তাই যাই কিনবেন ভালো করে উপাদান ও ব্যবহারিক নিয়ম পড়ে নিন। নিজের ত্বকের সঙ্গে কোন উপাদান ভালো যাবে, তা দেখেই কিনুন। চেষ্টা করবেন অ্যালকোহল-যুক্ত প্রডাক্ট না কেনার।

মেকআপ তো করেন। কিন্তু মেক আপ ব্রাশ কতটা পরিষ্কার ভেবে দেখেছেন কি। তাই পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখতে নিয়মিত মেক আপ ব্রাশগুলো পরিষ্কার করুন। ঈষদুষ্ণ পানিতে মাইল্ড কোনো লিকুইড সোপ দিয়ে এই ব্রাশগুলো ধুয়ে রাখুন। শুকিয়ে গেলে তবেই মেক আপ কিটে রাখবেন। যেগুলোর ব্রিসলস নষ্ট হয়ে গিয়েছে, ফেলে দিন।

ঘরে তৈরি মাস্ক ত্বকের পক্ষে ভালো। কিন্ত। অনেকে একটা ভুল করেন। ঘরে তৈরি মাস্ক বা ফেসপ্যাক বানিয়ে কিছুটা ব্যবহার করে রেখে দেন। এটা করবেন না। বাকিটা ফেলে দিন।

মেকআপ রিমুভার হিসেবে যদি অতিরিক্ত কেমিক্যাল যুক্ত প্রডাক্ট ব্যবহার করেন তা ফেলে দিন। বদলে অলিভ অয়েল বা বেবি অয়েল ব্যবহার করুন।

মেক আপ বা রূপচর্চার যেকোনো প্রডাক্টই খুব গরমের মধ্যে রাখবেন না। এতে সেগুলো তাড়াতাড়ি খারাপ হয়ে যায়।

এক্সপায়ার হয়ে গেলে সেই প্রডাক্ট আর মেকআপ কিটে রেখে দিবেন না। ফেলে দিন। নিয়মিত পরিষ্কার করুন মেকআপ কিট।

(ওএস/এসপি/আগস্ট ১০, ২০১৯)