ঢাকা, সোমবার, ২১ অক্টোবর ২০১৯, ৬ কার্তিক ১৪২৬

প্রচ্ছদ » বিনোদন » বিস্তারিত

নির্বাচনের ব্যাপারে ৪ অক্টোবরের আগে কিছুই নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না : অমিত হাসান

২০১৯ সেপ্টেম্বর ২৫ ১৬:৩৭:১৯
নির্বাচনের ব্যাপারে ৪ অক্টোবরের আগে কিছুই নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না : অমিত হাসান

বিনোদন প্রতিবেদক : শিল্পী সমিতির নির্বাচন বেশ জমে ওঠেছে। প্যানেল সাজানো নিয়ে সবাই ব্যস্ত। ৪ অক্টোবর শিল্পী সমিতির সাধারণ সভা। সমিতির বর্তমান কমিটি যাদের সদস্য পদ বাদ দিয়েছে, তাদের বিষয়টি এই সাধারণ সভায় পাস করিয়ে নিতে হবে। নতুবা ভোটার তালিকা থেকে কেউ বাদ যাবেন না। মৌসুমী সভাপতি হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন, এটা তিনি আগেই ঘোষণা দিয়েছেন। বর্তমানে তিনি অভিনেতা স্বামী ওমর সানিসহ সিঙ্গাপুর রয়েছেন। সেখান থেকে ফিরে এসেই নির্বাচনি কাজে নিয়োজিত হবেন। অমিত হাসানও নির্বাচন করার কথা ছিল। তিনি এখন পিছিয়ে গেছেন।

তিনি বলেন, মৌসুমী সভাপতি হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে, তাকে আমি স্বাগত জানাচ্ছি। কথা ছিল শাকিব আর আমি একটি প্যানেল দেব। কিন্তু শাকিব পিছিয়ে যাওয়ায় আমি আর আগ্রহী নই। তারপরও ৪ অক্টোবরের আগে কিছুই নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না।

অমিত হাসান বলেন, শাকিব খান নির্বাচন করবেন না। ফেসবুকে ডিএ তায়েবকে নিয়ে শাকিব খান প্যানেল করছেন বলে যে প্রচার চালানো হচ্ছে সেটা হলো একটা অপপ্রচার। এছাড়া তারকা শিল্পী যারা আছেন তারা সবাই মৌসুমীকে সমর্থন দিয়েছেন।

মৌসুমীর প্যানেল থেকে সাধারণ সম্পাদক হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার কথা ছিল নায়ক সাইমনের। এখন শোনা যাচ্ছে তিনি নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবেন না। তাহলে মৌসুমীর সাধারণ সম্পাদক কে হবেন, সেটা মৌসুমী ফিরে না আসা পর্যন্ত বুঝা যাচ্ছে না। অমিত বলেন, ‘মৌসুমী কয়েকজনকে বাড়িতে ডেকে বৈঠক করে নিজের প্রার্থিতা ঠিক করেছেন। সেখানে আমাদের ডাকা হয়নি। আমি বা শাকিব বিষয়টি একেবারে জানতামই না। আমরা তাদের বৈঠকের কথা পরে শুনেছি।’

অমিত হাসান বলেন, শিল্পী সমিতির মাংস বিলির রাজনীতি কতোটা এবারের নির্বাচনে প্রভাব ফেলবে তা বলা যাচ্ছে না। উল্লেখ করার বিষয় হলো, কোরবানির গরুর মাংস দুঃস্থ শিল্পীদের মধ্যে বিতরণের জন্য সামর্থ্যবান শিল্পীরা অর্থ সহায়তা দিয়েছেন। অথচ শুধু ভোট পাওয়ার জন্য বিত্তবান শিল্পীদের বাড়িতেও দুই কেজি করে মাংস পাঠানো হয়েছে। এ ধরনের নোংরা রাজনীতি দিয়ে কি নির্বাচনে জেতা যায়?

(এম/এসপি/সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৯)