ঢাকা, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ১ বৈশাখ ১৪৩১

প্রচ্ছদ » মুক্তিযুদ্ধ প্রতিদিন » বিস্তারিত

২২ ফেব্রুয়ারি, ১৯৭১

প্রেসিডেন্ট জেনারেল ইয়াহিয়া খান তাঁর মন্ত্রী সভা বাতিল করেন

২০২৪ ফেব্রুয়ারি ২২ ১২:২৯:৫৮
প্রেসিডেন্ট জেনারেল ইয়াহিয়া খান তাঁর মন্ত্রী সভা বাতিল করেন

উত্তরাধিকার ৭১ নিউজ ডেস্ক : পাকিস্তান মুসলিম লীগ (কাইয়ুম গ্রুপ) ৬-দফার প্রশ্নে তাদের ভাষায় আওয়ামী লীগের অনমনীয় মনোভাবের ৩ মার্চ ঢাকায় জাতীয় পরিষদের অধিবেশনে যোগদান না করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে। ৯০ মিনিট স্থায়ী সভা শেষে সাংবাদিকদের কাছে আবদুল কাইয়ুম খান বলেন যে, ফেডারেল ইউনিটের বক্তব্য শ্রবন ও গ্রহণ করা হবে বলে শেখ মুজিবুর রহমানের আশ্বাস ছাড়া তাঁর দলের এম.এন.এ-দের জাতীয় পরিষদ অধিবেশনে যোগদান করা নিরর্থক।

পাকিস্তান সরকারের কেবিনেট সেক্রেটারিয়েটের এক ইশতেহারে জানানো হয়, প্রেসিডেন্ট জেনারেল ইয়াহিয়া খান তাঁর মন্ত্রী সভা বাতিল করে দিয়েছেন এবং এই ব্যবস্থা আজ ভোর থেকে কার্যকর হয়েছে। ঐ ইশতেহারে আরো বলা হয় যে, দেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতির প্রেক্ষাপটে প্রেসিডেন্ট এই সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন। উল্লেখ্য প্রেসিডেন্ট ইয়াহিয়া খান ১৯৬৫ সালের ৪ আগষ্ট ৭ সদস্য-বিশিষ্ট এক মন্ত্রিসভা গঠন করেন।

সকল প্রদেশের গভর্নর ও সামরিক প্রশাসকদের এক বিশেষ সম্মেলনে প্রেসিডেন্ট জেনারেল এ.এম. ইয়াহিয়া খান সভাপতিত্ব করেন। সহকারী প্রধান সামরিক প্রশাসক জেনারেল আবদুল হামিদ খান এবং প্র্রেসিডেন্টের প্রধান স্টাফ অফিসার লে, জেনারেল এস.জি.এম পীরজাদাও সম্মেলনে যোগদান করেন। পিপিআইর খবরে প্রকাশ সরকারি ঘোষনায় ঐ সম্মেলনে আলাপ আলোচনয় বিষয়বস্তু সম্পর্কে কিছু না বলা হলেও দেশের বর্তমান রাজনৈতিক পরিস্থিতি নিয়েই আলোচনা হয় বলে অনুমান করা হচ্ছে।

নয়াদিল্লীস্থ পাকিস্তানী হাই কমিশন ভারতীয় বৈদেশিক দফতরের কাছে ক্ষতিপূরণ দাবি করেছে। পাকিস্তানী দূতাবাসের মূল ভবনের মধ্যে প্রবেশ করে সম্প্রতি বিক্ষোভকারীরা জিনিসপত্রের যে ক্ষতিসাধন করেছে পাকিস্তান সরকার তার ক্ষতিপূরণ বাবদ ৯৩ হাজার ৭৭০ টাকা ৬৫ পয়সা দাবি করেছে।

তথ্যসূত্র : মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর

(ওএস/এএস/ফেব্রুয়ারি ২২, ২০২৪)